খিরসাপাত আম পেল জিআই নিবন্ধন সনদ

ভৌগোলিক নির্দেশক পণ্য হিসেবে জিআই নিবন্ধন সনদ পেল চাঁপাইনবাবগঞ্জের খিরসাপাত আম।

শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন রোববার আনুষ্ঠিকভাবে এই সনদ তুলে দেন কৃষি গবেষণা ইন্সটিটিউটের চাঁপাইনবাবগঞ্জ আঞ্চলিক উদ্যানতত্ত্ব গবেষণা কেন্দ্রের প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. মোঃ শফিকুল ইসলামের হাতে।

এ উপলক্ষ্যে রাজধানীর মতিঝিলে শিল্পমন্ত্রণালয়ে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

এতে শিল্পমন্ত্রী বলেন, চাঁপাইনবাবগঞ্জের খিরসাপাত আম জিআই সনদ অর্জনের ফলে দেশে আমের উৎপাদন বৃদ্ধি পাবে। এতে আমকেন্দ্রিক অর্থনীতি জোরদার হবে।

তিনি বলেন, এখন গুণগতমানের জন্য সারা বিশ্বে আমের বড় বাজার রয়েছে। জিআই সনদ পাওয়ায় স্থানীয় আম চাষি, ব্যবসায়ী, কৃষিভিত্তিক শিল্প উদ্যোক্তাসহ সংশ্নিস্ট লাভবান হবেন বলে মনে করেন তিনি।

অন্যান্য জাতের আমসহ দেশের ঐতিহ্যবাহী ফল, ফুল, পাখি ও পণ্যকে জিআই নিববন্ধনের আওতায় আনার তাগিদ দেন মন্ত্রী। বিশেষ করে দ্রুততম সময়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জের ‘ল্যাংড়া’ এবং ‘আশ্বিনা’ আমের জিআই সনদ দেওয়ার জন্য পেটেন্ট, ডিজাইন ও ট্রেডমার্কস্‌ অধিদপ্তরকে (ডিপিডিটি) নির্দেশন দেন তিনি।

অনুষ্ঠানে শিল্পপ্রতিমন্ত্রী কামাল আহমেদ মজুমদার বলেন, খিরসাপাত আম জিআই পণ্য হিসেবে স্বীকৃতি পাওয়ায় দেশে-বিদেশে আমটির ব্যাপক চাহিদা ও বাণিজ্যিক সম্ভাবনা তৈরি হবে। এর মাধ্যমে বাংলাদেশের আলাদা ব্র্যান্ডিংয়ের সুযোগ বাড়বে। রফতানি বাজার থেকে সেই সুফল পাওয়া যাবে।

ভারপ্রাপ্ত শিল্পসচিব মোঃ আবদুল হালিমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এতে ডিপিডিটির রেজিস্ট্রার মো. সানোয়ার হোসেন, সনদ গ্রহণকারী ড. মো. শফিকুল ইসলাম, শিল্প মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন বিভিন্ন দপ্তর ও সংস্থার প্রধান এবং চাঁপাইনবাবগঞ্জ আমচাষি সমিতির নেতারা উপস্থিত ছিলেন।